আমার বয়স ২০। আমি ১টা ছেলে কে ভালবাসি। তার বয়স ২৪। ২০১৩ সালে ফেসবুকে তার সাথে পরিচয়। সেখান থেকেই প্রেম। আমাদের সম্পর্কটার প্রায় ৭ বছর হতে চলেছে। আমরা দুজন দুজনকে খুব ভালবাসি। এই ৭ বছরে অনেক ঝগড়া রাগ অভিমান হয়েছে। এমনকি কথা বলাও বন্ধ হয়েছে অনেক বার। কিন্তু তারপরেও আবার দুজন এক হয়ে গিয়েছি। কেউ কাউকে ভুলে যেতে পারি নি। আমি অনার্স ২য় বর্ষে পড়ছি। আর ও Bsc  করছে। আমার অনার্স শেষ হতে আরও ৩ বছর লাগবে। ততদিনে ওর BSC ও শেষ হবে। আমার পরিবারে কেউ আমাদের রিলেশনের কথা জানে না। কিন্তু ওর পরিবারের সবাই জানে ওর বাবা ছাড়া। এখন আমার বাবা আমার বিয়ে দিতে চাইছে। এই মুহূর্তে আমার বিয়ে করা সম্ভব না। কারণ ওকে ছাড়া আমি কাউকে বিয়ে করতে রাজি না। ও আবার গ্রামে থাকে সেখান থেকে মাঝে মাঝে ঢাকায় এসে ক্লাস করে চলে যায়। আমি ঢাকায় থাকি। গ্রামে ওদের ১টা ব্যবসা আছে ওর বাবার। সেটা এখন ওকেই সামলাতে হয়। তাই ঢাকায় জব করা ওর পক্ষে সম্ভব না ওর বাবা চায় ও যাতে জব না করে ওর বাবার ব্যবসা দেখাশোনা করে। ওর ১টা বড় ভাই আছে উনি দেশের বাইরে থাকেন। উনি এখনও বিয়ে করেন নি। এদিকে আমার বাবা আমাকে বিয়ে দিতে চাইছে। ওর জব নেই তাই বাবাকে ওর কথা বলতে পারছি না। আমার বাবা ও একটা বেসরকারি অফিসে জব করে। আমি পরিবারের বড় মেয়ে। আর আমাকে বাবা কোনদিনও গ্রামে বিয়ে দিতে রাজি হবে না। এই পরিস্থিতি দেখে আমার বয়ফ্রেন্ড আমাকে বলেছে আমি যাতে আমার পরিবারের কথা মেনে নেই। মা বাবাকে খুশি রাখি। তাদের পছন্দের ছেলে কে বিয়ে করি। আমি জানি ওর কষ্ট হচ্ছে কিন্তু কিছু করতে পারছে না বলে আমাকে এগুলো বলছে। এখন আমি কিভাবে সব স্বাভাবিক করতে পারি? আমি চাই দুই পরিবারের সম্মতিতে ওকে বিয়ে করতে। অন্য কাউকে না। এখন আমার কি করা উচিত? আমার বয়ফ্রেন্ডও আমার ভালো হবে পরিবারের কথা মেনে চললে এই ভেবে আমার সাথে যোগাযোগ বন্ধ করে দিয়েছে।

উত্তর করেছেন : AR Rahman

  5 দিন পূর্বে

প্রশ্ন করুন আপনিও