প্রিয় গ্রাহক আপনাকে ধন্যবাদ। আমি কি আপনাকে কিছু প্রশ্ন করতে পারি? আপনার বয়স কত? আপনি ছেলে না মেয়ে? আপনার ওজন কত?অনেক সময় চোখের নিচের অংশে বা উপরের পাতাসহ চোখের নিচের পাতায় কালো দাগ দেখা যায়। এই দাগ মুখের অন্যান্য অংশের রঙের চেয়ে গাঢ়। হঠাৎ করে দেখলে মনে হয় শেড বা ছায়া পড়েছে।চোখের নিচে কালো দাগ পরার কিছু কারন হচ্ছে.........-বংশগত কারনে চোখের নিচে এই কালো দাগ হতে পারে। অনেক পরিবারে দেখা যায় বংশ পরম্পরায় এরকম হয়ে আসছে। বিশেষ করে যাদের গায়ের রং ফর্সা এবং চোখ কোটরে বসা তাদের ক্ষেত্রে।-ঘুম কম হলে বা ঘুমের ব্যাঘাত ঘটলে মুখ ফ্যাকাশে বা মলিন হয়ে যায়। এতে ত্বকের রক্তনালীগুলো স্পষ্ট হয়ে ওঠে যা ত্বক নিলচে বা কালচে করতে সাহায্য করে।-সূর্যের আলো চোখের চারপাশে বয়সের দাগ ফেলে এবং ত্বক পাতলা করে ফেলে যার কারনে চোখের চারপাশে কালো দাগ পড়তে পারে। -চোখের নিচের ত্বকের রক্তনালী প্রসারিত হলে এবং জমটবদ্ধতা দেখা দিলেও হতে পারে। অতিরিক্ত লবণ খাওয়া এবং ধূমপান এর একটি বড় কারণ। কিছু রোগ যেমন- হাট, থাইরয়েড, কিডনি, লিভার, সমস্যা হলে অথবা ঔষধের কারনে অনেক সময় রক্তনালী প্রসারির হয়ে সমস্যা বাড়াতে পারে।-অতিরিক্ত কাজের চাপ, মানসিক দুশ্চিন্তা, অবসাদ, ক্লান্তি ইত্যাদির কারনে কালো দাগ পড়তে পারে।-এলার্জির কারনে অনেক সময় চোখের নিচে কালি পড়ে। এলার্জি যেমন ধূলাবালি, ফুলের রেনু, পোষা প্রাণীর লোম ইত্যাদির কারনে চোখ চুলকায় তখন চোখ ঘষলে চোখের নিচে এ ধরনের কালো দাগ পড়তে পারে। আবার এলার্জি জনিত জ্বর এবং ফুড এলার্জির কারনেও এই সমস্যা হতে পারে।- আয়রনের অভাবে রক্ত শূন্যতা দেখা দেয়। ফলে চোখের নিচের ত্বক নীলচে কালো রং ধারণ করে।দেহের পর্যাপ্ত পানি না থাকলে অর্থাৎ পানির অভাব চোখের নিচে কালো দাগ পড়ে।অতিরিক্ত ওজন কমে যাওয়ার কারনেও এ সমস্যা দেখা দিতে পারে। সুষম খাদ্যের অভাবে এবং অতিরিক্ত ডায়েটিংও একটি কারন।আশা করি আপনাকে সাহায্য করতে পেরেছি।আর কোন প্রশ্ন থাকলে , মায়া আপাকে জানাবেন।রয়েছি পাশে সবসময়, মায়া আপা।

আপনার কোনো প্রশ্ন আছে?

মায়া অ্যাপ থেকে পরিচয় গোপন রেখে নিঃসংকোচে শারীরিক, মানসিক এবং জীবনধারা বিষয়ক যেকোনো প্রশ্ন করুন, বিশেষজ্ঞের পরামর্শ নিন।


মায়া অ্যাপ ডাউনলোড করুন

প্রশ্ন করুন আপনিও