প্রিয় গ্রাহক,আপনার প্রশ্নের জন্য ধন্যবাদ।ঘুমের সময় টা আসলে নির্ভর করে মানুষের বয়স, শারীরিক পরিশ্রম, লাইফ স্টাইল, সাস্থ্য ইত্যাদির উপর... এগুলোর উপর ভিত্তি করে মানুষের ঘুমের সময় কম বেশি হতে পারে... কিন্তু মাত্রাতিরিক্ত ঘুম শরীরের জন্য খুবই ক্ষতিকর... অতিরিক্ত ঘুমানো আসলে একটা রোগ যাকে Hypersomnia বলা হয়ে থাকে... এ রোগ হয়ে থাকলে মানুষ সাধারণত দিনে বা রাতে খুব বেশি পরিমানে ঘুমিয়ে থাকে... এছাড়া শারীরিক দুর্বলতা, রক্তশূন্যতা, হরমনাল রোগের কারনেও বেশি ঘুম আসে, মানুষ খুব বেশি পরিমানে ঘুমালে অলস হয়ে যায়, কর্মক্ষমতা হারিয়ে ফেলে, মেজাজ খিটখিটে হয়ে যায়...অতিরিক্ত ঘুম স্থুলতা, daibetes, মাথা ব্যাথা, শরীরের ব্যাথা, হতাশার অন্যতম কারণ...এছাড়া অতিরিক্ত ঘুমানের ফলে আপনার হার্ট এর অসুখ ও বাড়িয়ে দিবে,ব্লাড প্রেসার বাড়াবে,রক্তে কলেস্টেরল এর মাত্র বাড়িয়ে দিবে...আপনার শরীরের ন্যাচারাল বডি ডিফেন্স কে নষ্ট করে দিবে... জরিপে দেখা গেছে যে কোনো প্রাপ্ত বয়স্ক মানুষ যদি রাতে ৯ ঘন্টা বা তার অধিক সময় ঘুমায় তার মৃত্যর ঝুকি ৭-৮ ঘন্টা ঘুমানো মানুসের তুলনায় বেশি থাকে...তাই ঘুমুতে যতই ভালো লাগুক, অতিরিক্ত ঘুম কখনো ই না..আশা করি আপনাকে সাহায্য করতে পেরেছি।আর কোন প্রশ্ন থাকলে, মায়া আপাকে জানাবেন,রয়েছে পাশে সবসময়,মায়া আপা ।

পরিচয় গোপন রেখে ফ্রিতে শারীরিক, মানসিক এবং লাইফস্টাইল বিষয়ক যেকোনো প্রশ্ন করতে পারেন Maya অ্যাপ থেকে। অ্যাপের ডাউনলোড লিঙ্কঃ http://bit.ly/38Mq0qn


প্রশ্ন করুন আপনিও