গ্রাহক আপনার প্রশ্নের জন্য ধন্যবাদ। গ্রাহক নবজাতক এর পেটে অনেক গ্যাস হয়ে থাকে।অতিরিক্ত গ্যাস থেকে এরকম হতে পারে। নবজাতকের গ্যাসের সমস্যা হওয়া খুবই স্বাভাবিক, কারণ এই সময় তার অন্ত্রের গঠন হতে থাকে। কিছু নিয়ম মেনে চললে এগুলো থেকে আরাম হতে পারে। 🔹বার্পিংঃ দুধ পান করানোর পর বার্পিং বা হাওয়া বের করতে হবে। শিশুকে কাঁধে রেখে পিঠে মৃদু চাপড় দিলে খাওয়ার সময় ঢুকে পড়া হাওয়া শিশু ঢেঁকুর তুলে বের করে দেয়। এর ফলে শিশুর বমি বা পেট ব্যথা হয় না। দুধ খাওয়ানোর সাথে সাথে না শোয়ানোই ভালো। 🔹টামি টাইমঃ বাচ্চার জন্মের কিছুদিন পর থেকেই দিনে ২-৩ বার ৫-১০ মিনিটের জন্য পেটের উপর উপুড় করে শুইয়ে রাখলে পেটের গ্যাস রিলিফ হয় এবং শিশুর ঘাড়ের এবং যে পেশিগুলো গড়াতে ও হামাগুড়ি দিতে সাহায্য করে সেগুলো শক্ত হয়। 🔹টামি এক্সারসাইজঃ টামি এক্সারসাইজ এর অনেক ভিডিওতে ইউ টিউবে পাওয়া যায়। প্রতিদিন ১-২ বার বাচ্চার পেট ম্যাসাজ এবং কিছু টামি এক্সারসাইজ যেমন সাইক্লিং এগুলো পেটের গ্যাস রিলিফ করতে সাহায্য করে।

আপনার কোনো প্রশ্ন আছে?

মায়া অ্যাপ থেকে পরিচয় গোপন রেখে নিঃসংকোচে শারীরিক, মানসিক এবং জীবনধারা বিষয়ক যেকোনো প্রশ্ন করুন, বিশেষজ্ঞের পরামর্শ নিন।


মায়া অ্যাপ ডাউনলোড করুন

প্রশ্ন করুন আপনিও