প্রিয় গ্রাহক,আপনার প্রশ্নের জন্য ধন্যবাদ।প্রথমেই আপনাকে অসংখ্য ধন্যবাদ ও সাধুবাদ জানাছি আমাদের কাছে মানসিক সহায়তা চাওয়ার জন্য। আপনার এই পদক্ষেপ প্রমাণ করে যে আপনি আপনার বর্তমান পরিস্থিতি  থেকে বের হতে আসার জন্য চেষ্টা করেছেন এবং আপনি হাল ছেড়ে দেন নাই। আর কোন পরিস্থিতি থেকে বের হয়ে আসার জন্য এই ইচ্ছা ও সচেতনতারজায়গাটি খুব গুরুত্বপূর্ন।  আমি বুঝতে পারছি আপনার অবস্থাটা। আপনি শারীরিক ভাবে উত্তেজিত হতে পারছেন না। একটা মেয়ের শারীরিক উত্তেজনার জন্য অনেক সময় তার আবেগ- অনুভূতি, তার সঙ্গীর প্রতি আকর্ষন এবং মোহনিয়তা অনেক গুরুত্বপূর্ন।  এক্ষেত্রে আপনি কিছু পদ্ধতি অবলম্বন করতে পারেন। আপনি এই শারীরিক উত্তেজনা থেকে কি ধরণের আবেগ পেতে চান সেটা খুঁজে বের করতে পারেন।প্রথমত, আপনি মানুষিক ভাবে প্রস্তুতি নিতে পারেন। কারণ মানসিক ভাবে প্রস্তুত না থাকলে আপনি উত্তেজিত হতে পারবেন না বা অনুভব করতে পারবেন না। এজন্য আপনার সঙ্গীর উপর আপানার শ্রদ্ধা ও বিশ্বাস থাকাটা অনেক গুরুত্বপূর্ন। দ্বিতীয়ত, আপনি আপনার শরীরের স্পর্শকাতর জায়গাগুলোকে ছুতে পারেন,স্পর্শ করতে পারেন যেমন আপনার স্তন, যোনি পথ এগুলো স্পর্শ করতে পারেন বা আলতো করে ছুতে পারেন।  এছাড়া আপনার অন্যান্য যৌন অঙ্গ গুলোকে আপনি আলতো ভাবে স্পর্শ করতে পারেন। এক্ষেত্রে আপনার সঙ্গীর ভূমিকা অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ন। সম্ভব হলে এধরণের কিছু ছবি আপনি দেখতে পারেন, যেমন পত্রিকার বিনোদন পাতা ইত্যাদি।মেয়েদের বীর্যপাত হয় না। তবে তাদের ওরগাজম হয়। এটার অর্থ হচ্ছে প্রচন্ড উত্তেজনা বা কাম ভাব এর চরম উত্তেজনা কর অবস্থা। আর সেই অবস্থায় তারা সেটা অনুভব করতে পারে। তাদের উত্তেজনা কর মুহুর্তে সাদা কিছু তরল পদার্থ দেখা যায় এবং কিছুটা মূত্র ও মূত্রের সাথে মিশ্রিত কিছু তরল পদার্থ দেখা যায়। আমাদের সাথে শেয়ার করার জন্য ও বলার জন্য আবার ও আপনাকে ধন্যবাদ। আশা করি আপনাকে সাহায্য করতে পেরেছি।আর কোন প্রশ্ন থাকলে, মায়া আপাকে জানাবেন,রয়েছে পাশে সবসময়,মায়া আপা ।

আপনার কোনো প্রশ্ন আছে?

মায়া অ্যাপ থেকে পরিচয় গোপন রেখে নিঃসংকোচে শারীরিক, মানসিক এবং জীবনধারা বিষয়ক যেকোনো প্রশ্ন করুন, বিশেষজ্ঞের পরামর্শ নিন।


মায়া অ্যাপ ডাউনলোড করুন

প্রশ্ন করুন আপনিও