প্রিয় গ্রাহক, আপনার প্রশ্নের জন্য ধন্যবাদ। রোজার সময় সেহরি তে এবং ইফতারে নিয়মমতো পুষ্টিকর খাবার গ্রহণ করলে আপনার ক্ষুধা লাগার সম্ভাবনা থাকেনা....সেহরিতে ভাত এর সাথে মাংস বা আমিষ জাতিও খাবার খেলে তা বেশিক্ষণ পেটে থাকে..এছাড়া দুধ খেতে পারেন এক গ্লাস...কারন আমিষ ও স্নেহ জাতিও খাবার দেরিতে হজম হয়...তাই ক্ষুধা লাগে কম...আর অবশ্যই বেশী পানি খাবেন...ইফতারিতে ভাজা পোড়া যত এড়িয়ে চলা যায় ততোই ভাল... লেবুর শরবত খাবেন...হাল্কা খাবার দিয়ে ইফতারি করে তারপর ভরপেট খাবেন কিন্তু পাকিস্থলীর ১/৩ ভাগ খালি রাখবেন ...আপনার রমজান মাস ভাল কাটুক... আশা করি আপনাকে সাহায্য করতে পেরেছি। আর কোন প্রশ্ন থাকলে, মায়া আপাকে জানাবেন, রয়েছে পাশে সবসময়, মায়া আপা ।

আপনার কোনো প্রশ্ন আছে?

মায়া অ্যাপ থেকে পরিচয় গোপন রেখে নিঃসংকোচে শারীরিক, মানসিক এবং জীবনধারা বিষয়ক যেকোনো প্রশ্ন করুন, বিশেষজ্ঞের পরামর্শ নিন।


মায়া অ্যাপ ডাউনলোড করুন

প্রশ্ন করুন আপনিও