প্রিয় গ্রাহক, আপনার প্রশ্নের জন্য ধন্যবাদ। অর্শ বা পাইলস হলো পায়ুপথে এবং মলাশয়ের নিম্নাংশে অবস্থিত প্রসারিত এবং প্রদাহযুক্ত শিরা। এই অর্শ মলদ্বারের ভেতরেও হতে পারে আবার বাইরেও হতে পারে। সাধারনত দীর্ঘমেয়াদী কোষ্ঠকাঠিন্য অথবা গর্ভকালীন সময়ে এই সমস্ত ধমনীর উপর চাপ বেড়ে গেলে পাইলসের সমস্যা দেখা দেয়। দীর্ঘমেয়াদী কোষ্ঠকাঠিন্য বা ডায়রিয়া, পানি কম খাওয়া, শাকসব্জী ও অন্যান্য আঁশযুক্ত খাবার কম খেলে, অতিরিক্ত ওজন, গর্ভাবস্থায়, লিভার সিরোসিস, বৃদ্ধ বয়সে, বেশী চাপ দিয়ে মল ত্যাগ করলে, বেশি মাত্রায় মল নরমকারক ওষুধ ব্যবহার করলে, টয়লেটে বেশী সময় ব্যয় করলে, পরিবারে কারও পাইলস থাকলে, দীর্ঘ সময় বসে থাকলে ইত্যাদি নানান কারনে অর্শ বা পাইলস বেশি হয়ে থাকে। পায়খানার সময় ব্যথাহীন রক্তপাত হতে পারে।মলদ্বারে চুলকানি ও জ্বালাপোড়া হতে পারে।মলদ্বারের ফোলা বাইরে বেরিয়ে আসতে পারে আবার নাও পারে। অনেক সময় বের হলে তবে তা নিজেই ভেতরে চলে যায় অথবা হাত দিয়ে ভেতরে ঢুকিয়ে দেয়া যায়। আবার কখনও কখনও বাইরে বের হওয়ার পর তা আর ভেতরে প্রবেশ করানো যায় না অথবা প্রবেশ করানো গেলেও তা আবার বেরিয়ে আসে।মলদ্বারের বাইরে ফুলে যায় যা হাত দিয়ে স্পর্শ ও অনুভব করা যায়।পায়ুপথের মুখে চাকার মত হতে পারে।কিছু কিছু ক্ষেত্রে মলদ্বারে ব্যথা হতে পারে। সবুজ শাকসবজি ও আঁশজাতীয় খাবার বেশি করে খেতে হবে। বেশি বেশি পানি পান করতে হবে। নিয়মিত মলত্যাগের অভ্যাস করতে হবে। কোনো ধরনের অনিয়ম দেখা দিলে কিংবা সমস্যায় আক্রান্ত হলে চিকিৎসকের সাথে পরামর্শ করতে হবে। যদি কোনো কারণে মলের সাথে রক্ত দেখা যায় অথবা এ জাতীয় অন্য কোনো সমস্যা দেখা যায়, তাহলে অবশ্যই দ্রুত একজন  সাজারি বিশেষজ্ঞ চিকিৎসকের কাছে যেতে হবে। আশা করি আপনাকে সাহায্য করতে পেরেছি। আর কোন প্রশ্ন থাকলে, মায়া আপাকে জানাবেন, রয়েছে পাশে সবসময়, মায়া আপা ।

আপনার কোনো প্রশ্ন আছে?

মায়া অ্যাপ থেকে পরিচয় গোপন রেখে নিঃসংকোচে শারীরিক, মানসিক এবং জীবনধারা বিষয়ক যেকোনো প্রশ্ন করুন, বিশেষজ্ঞের পরামর্শ নিন।


মায়া অ্যাপ ডাউনলোড করুন

প্রশ্ন করুন আপনিও