গ্রাহক, আপনার কথা থেকে অনুভব করতে পারছি যে আপনার মেজাজ খিটখিটে হয়ে থাকে,   আপনি নিজের অনুভুতির ব্যাপারে সচেতন যা খুবই ইতিবাচক। গ্রাহক আপনি কি কোন কিছু নিয়ে চিন্তিত বা মানসিক চাপ, দুশিন্তায় আছেন? আমার সাথে কি সেটা শেয়ার করা যায়? গ্রাহক শরীর ও মন অবিচ্ছেদ্য ভাবে জড়িত একটি ভালো না থাকলে অপরটি ও সুস্থ থাকে না, আপনি কি আমাকে বলবেন কোন বিষয় গুলো আপনার খারাপ লাগে বা চিন্তা হয়? কোন বিষয় গুলো নিয়ে আপনার যখন রাগ হয় তখন আপবার কি চিন্তা  হয়? গ্রাহক মনের কথা গুলো প্রিয় মানুষ এর সাথে শেয়ার করতে পারেন, নিজের ভালো লাগার আনন্দ দায়ক কাজ গুলোর প্রতি মনোযোগ দেয়ার চেষ্টা করতে পারেন।রাগ মানুষ এর বেসিক ইমোশন। সবারই রাগ আছে। তাই রাগ হওয়া মানুষ এর খুবই সাধারণ ন্যাচার।তবে রাগকে কিভাবে প্রকাশ করা হচ্ছে সেটা খুব গুরুত্বপূর্ণ। কখন আপনার রাগ বেশি হয়?রাগ কে পজিটিভ ভাবে প্রকাশ পজিটিভ ভাবে বলতে বুঝায় অন্যের কোনো ক্ষতি না করে বা নিজের কোনো ক্ষতি না করে রাগ কে প্রকাশ করা।রাগ প্রকাশ করার জন্য সর্বপ্রথম কোন কোন ক্ষেত্রে আপনার রাগ হয় সেটা চিহ্নিত করার চেষ্টা করুন।রাগের ফলে কি অনুভূতি হচ্ছে সেটা বুঝার চেষ্টা করুন।রাগ হলে কিছু সময় নিন সেই স্থান টা থেকে বেরিয়ে যেতে পারেন এ সময়ে ১-১০ পর্যন্ত গুনতে পারেন।এরপর আপনার যা বলার তা প্রকাশ করতে পারেন।গ্রাহক যদি সম্ভব হয় তাহলে তার সাথে কথা বলতে পারেন।ঠান্ডা মাথায় জানতে চাইতে পারেন যে তিনি কি কারনে এমন করছেন র কি চান।তাকে ভদ্রভাবে বুঝিয়ে বলতে পারেন এতে আপনার কি অসুবিধা হচ্ছে, আপনি কেমন বোধ করছেন আর কি হলে আপনার ভালো লাগবে। এই ভাবে কারো সাথে যোগাযোগের মাধ্যমে বড় বড় ঘটনাও কোন রকম বিবাদ ছাড়াই মিটানো সম্ভব। এছাড়া আপনি ব্যাপারটি বিশ্বস্ত কারো সাথে শেয়ার করতে পারেন,তাতে আপনার মন হালকা লাগবে।আপনার পাশে রয়েছেমায়া

আপনার কোনো প্রশ্ন আছে?

মায়া অ্যাপ থেকে পরিচয় গোপন রেখে নিঃসংকোচে শারীরিক, মানসিক এবং জীবনধারা বিষয়ক যেকোনো প্রশ্ন করুন, বিশেষজ্ঞের পরামর্শ নিন।


মায়া অ্যাপ ডাউনলোড করুন

প্রশ্ন করুন আপনিও