এন্ডোক্রিনোলজি ডায়াবেটিস টাইপ ২

টাইপ-২ ডায়াবেটিস নির্ণয় করা

আপনি যত দ্রুত ডায়াবেটিস নির্ণয় করতে পারবেন, তত দ্রুত আপনি আপনার চিকিৎসা শুরু করতে

পারবেন। এজন্য রোগের কোন লক্ষণ দেখলেই দেরি না করে আপনার চিকিৎসকের সাথে যোগাযোগ

করুন। আপনার চিকিৎসক আপনাকে কি কি সমস্যা হচ্ছে জিজ্ঞেস করার পাশাপাশি আপনাকে

প্রস্রাবের নমুনা দিতে বলবেন।

প্রস্রাব এবং রক্ত পরীক্ষা

প্রথমত আপনার প্রস্রাবে গ্লুকোজ আছে নাকি তা পরীক্ষা করা হবে। স্বাভাবিক অবস্থায় প্রস্রাবে

গ্লুকোজ থাকে না, রক্তে গ্লুকোজের পরিমান বেশি হয়ে গেলে কিছু গ্লুকোজ কিডনি হয়ে প্রস্রাবে চলে

আসতে পারে। আপনার প্রস্রাবে গ্লুকোজ পাওয়া গেলে, আপনার ডায়াবেটিস আছে নাকি নেই তা

নিশ্চিত হবার জন্য একটি রক্ত পরীক্ষা করতে বলা হবে । সকালবেলা আপনি কিছু খাবার আগে

আপনার রক্তের নমুনা নেয়া হবে এবং এটি থেকে আপনার রক্তে গ্লুকোজের মাত্রা পরিমাপ করা হবে।

যদি এই পরীক্ষায় আপনার রক্তে গ্লুকোজের পরিমাণ যে মাত্রায় থাকলে ডায়াবেটিস বলা হয় তার

চেয়ে কম থাকে, তাহলে আপনাকে ওরাল গ্লুকোজটলারেন্স টেস্ট (OGTT) করতে বলা হতে পারে।

এটিকে অনেক সময় শুধু গ্লুকোজটলারেন্স টেস্টও (GTT). বলা হয়। এই পরীক্ষায় প্রথমে আপনাকে

গ্লুকোজ সমৃদ্ধ কোন পানীয় খেতে দেয়া হবে এবং পরবর্তী ২ ঘণ্টা ধরে আধা ঘণ্টা পরপর আপনার

রক্ত পরীক্ষা করে দেখা হবে যে আপনার রক্তে গ্লুকোজের পরিমাণ কত।

About the author

Maya Expert Team

Leave a Comment