এন্ডোক্রিনোলজি ডায়াবেটিস টাইপ 1

টাইপ-১ ডায়াবেটিসের লক্ষণসমূহ

ডায়াবেটিস এর প্রধান লক্ষণগুলো হলো

● প্রচণ্ড পিপাসা লাগা

● অতিরিক্ত প্রস্রাব হওয়া

● দুর্বল লাগা

● ওজন কমে যাওয়া এবং মাংসপেশি শুকিয়ে যাওয়া

কয়েক সপ্তাহ এমনকি কয়েক দিনের মধ্যেও টাইপ-১ ডায়াবেটিসের লক্ষণ দেখা যেতে পারে। অন্যান্য

কিছু লক্ষণ হল;

● যোনি বা লিঙ্গের আশেপাশে চুলকানি হওয়া বা নিয়মিত ছত্রাকের সংক্রমণ হওয়া

● দৃষ্টি ঘোলা হয়ে যাওয়া (চোখের লেন্স শুকিয়ে যাবার কারনে হয়ে থাকে)

● পেট ব্যাথা

● কৌষ্ঠকাঠিন্য

● চামড়ায় ইনফেকশন হওয়া

হাইপোগ্লাইসিমিয়ার (রক্তে গ্লুকোজের মাত্রা কমে যাওয়া) লক্ষণ

ডায়াবেটিস থাকলে আপনার রক্তে গ্লুকোজের মাত্রা হটাৎ করে অনেক বেশি কমে যেতে পারে। এটি

হাইপোগ্লাইসেমিয়া বা হাইপো নামে পরিচিত। ইনসুলিন আপনার রক্ত থেকে বেশি পরিমানে গ্লুকোজ

সরিয়ে নিলে হাইপো হয়। অধিকাংশ ক্ষেত্রে এক বেলা না খেলে অথবা অতিরিক্ত শারীরিক পরিশ্রম বা

ব্যায়াম করলে বা খালি পেটে মদ্যপান করলে ‘হাইপো’ হয়।

‘হাইপো’র লক্ষণ;

● কাঁপুনি এবং অস্বস্তি লাগা

● ঘেমে যাওয়া

● ঠোঁট জ্বলা

● দুর্বল লাগা

● ক্ষুধা লাগা

● বমি বমি ভাব

‘হাইপো’ নিয়ন্ত্রনে আনার জন্য মিষ্টি কিছু খেলে বা পান করলেই হবে।‘হাইপো’ নিয়ন্ত্রনে না আনলে

আপনার কথা জড়িয়ে যেতে পারে এমনকি আপনি অজ্ঞানও হয়ে যেতে পারেন। এরকম হলে আপনাকে

অবিলম্বে গ্লুকাগন হরমোনের ইনজেকশন দিতে হবে। গ্লুকাগন রক্তে গ্লুকোজের মাত্রা বাড়ায়।

হাইপারগ্লাইসেমিয়ার (রক্তে গ্লুকোজের মাত্রা বেড়ে যাওয়া) লক্ষণ

শরীর যখন আপনার রক্তে গ্লুকোজের মাত্রা নিয়ন্ত্রণ করার জন্য পর্যাপ্ত ইনসুলিন তৈরি করতে

পারে না তখনই ডায়াবেটিস হয়। এ কারনেই ডায়াবেটিসের সময় রক্তে গ্লুকোজের মাত্রা অনেক বেশি

হয়ে যেতে পারে। রক্তে অতিমাত্রায় গ্লুকোজ থাকাকেই হাইপারগ্লাইসেমিয়া বলে।

হাইপারগ্লাইসেমিয়ার লক্ষণগুলো ডায়বেটিসের মত হলেও এগুলো হঠাৎ করে এবং মারাত্মক ভাবে

দেখা দিতে পারে। হাইপারগ্লাইসেমিয়ার লক্ষণসমূহ;

● প্রচণ্ড পিপাসা লাগা

● মুখ শুকিয়ে যাওয়া

● দৃষ্টি ঘোলা হয়ে যাওয়া

● ঘুম ঘুম ভাব

● ঘনঘন প্রস্রাব

নিয়ন্ত্রন না করলে হাইপারগ্লাইসেমিয়া থেকে ডায়াবেটিক কেটোঅ্যাসিডোসিস হতে পারে যার কারনে

জ্ঞান হারানো থেকে শুরু করে মৃত্যু পর্যন্ত হতে পারে। ডায়াবেটিক কেটোঅ্যাসিডোসিস হলে আপনার

শরীর গ্লুকোজের বদলে ফ্যাট ভেঙে শক্তি উৎপাদন করা শুরু করে; এর ফলে আপনার রক্তে

অতিরিক্ত অ্যাসিড জমা হতে থাকে।

জরুরীভিত্তিতে কখন চিকিৎসকের কাছে যাওয়া উচিত

আপনার যদি ডায়াবেটিস থাকে এবং নিম্নলিখিত কোন লক্ষণ দেখা দেয় তবে অবিলম্বে আপনার

চিকিৎসকের সাথে যোগাযোগ করুন;

● ক্ষুদামন্দা

● বমি বমি ভাব

● প্রচন্ড পেটে ব্যাথা

● মুখে মিষ্টি গন্ধ ; অনেকটা নেইল পলিশ বা নাশপাতির রসের মত

About the author

Maya Expert Team

Leave a Comment